দীপাবলিতে আতসবাজির ধোঁয়া মারাত্মক ক্ষতি করে! কীভাবে বাঁচবেন নিজেকে? জানুন…

কোচবিহার: দীপাবলির আনন্দ উৎসব মানেই আলোর রোশনাই। আর দীপাবলির এই আলোর উৎসবে রকমারি আতসবাজি জ্বালানোর হবে না তা আবার হয় নাকি! তবে এই আতসবাজির থেকে ঘটে যেতে পারে নানা বিপত্তি। তাই বিপত্তি ঘটার আগেই জেনে নিন কোন কোন বিষয়ের দিকে নজর রাখবেন।

কোচবিহারের এক অভিজ্ঞ চিকিৎসক অর্ণব নিয়োগী জানান, আতসবাজি পোড়ানোর ক্ষেত্রে কী অসুবিধা হয় সকলের? আর কোন কোন বিষয় সকলের মনে রাখতে হবে আতসবাজি পোড়ানোর ক্ষেত্রে?

আরও পড়ুনঃ ৫০০ টাকায় শুরু, ৪৫ দিনে রোজগার বেড়ে ১৫০০০! সোশ্যাল মিডিয়া থেকে কী আইডিয়া পেয়েছিলেন মৌমিতা, জানুন…

বাজির পোড়ানোর ক্ষেত্রে অসুবিধা: প্রতিবছর দীপাবলির উৎসবে ব্যাপক পরিমাণে আতসবাজি পোড়ানো হয়। সেই কারণে এই সময় বায়ু দূষনের মাত্রা কয়েকগুণ বেড়ে যায়। আতসবাজির মধ্যে থাকে কপার, জিঙ্ক, ক্যাডমিয়াম, সালফেট, ফসফরাস, বারুদ। সব মিলিয়ে এক একটি বাজি পুড়ে সেটা থেকে যে বিষাক্ত ধোঁয়া নির্গত হয়। সেই ধোঁয়া মানবদেহের জন্য প্রচুর ক্ষতি করে। এই ধোঁয়া থেকেই শ্বাসকষ্ট, অ্যালার্জি, বুকে যন্ত্রণা, সর্দি, কাশি হতে পারে। গর্ভবতী মহিলাদের ক্ষেত্রে নানা জটিল সমস্যা তৈরি হতে পারে।

বাজি পোড়ানোর ক্ষেত্রে বাজির আগুনের ফুলকি চোখের মধ্যে ঢুকে সমস্যা তৈরি করতে পারে। বাজির আগুনে ছ্যাকা লেগে পুড়ে যাওয়ার আশঙ্কা থাকে। ছোট-বড় সকলের জন্য সমস্যার তৈরি করতে পারে আতসবাজি।

আরও পড়ুনঃ ‘ও তোর মেয়ে’, তারপর শোভন…! মহুলের জন্মদিনের পোস্টে আচমকা কেন এমন লিখলেন বৈশাখী বন্দ্যোপাধ্যায়?

মনে রাখার বিষয় ও করণীয় কাজ: বাজি পোড়ানোর ক্ষেত্রে অবশ্যই মুখে ভাল ধরনের ফেসমাস্ক ব্যবহার করা উচিত। যাতে বাজির ধোঁয়ায় থাকা ক্ষতিকর জিনিস শরীরে কম প্রবেশ করে। বাজি পোড়ানোর পরে গরম জলের ভেপার নেওয়া স্বাথ্যের পক্ষের ভাল। যতটা সম্ভব বেশি ধোঁয়ার জায়গা উপেক্ষা করে বাজি পোড়ানো উচিত। খুব বেশি পরিমাণে বাজি পোড়ানো একেবারেই উচিত নয়।

বাজি পোড়ানোর সময় একটি বালতির মধ্যে জল সঙ্গে রাখা উচিত। আগুনের ছ্যাকা লাগলে ঠান্ডা জল নয়, সাধারণ জল দিতে হবে ছ্যাকা লাগা জায়গায়। চোখে আগুনের ফুলকি গেলে, ভাল করে জলের ঝাপটা দিতে হবে চোখের মধ্যে। যাতে চোখের কোনও ক্ষতি না হয়। এ ছাড়া বেশি সমস্যা হলে ডাক্তারের প্রেসক্রাইব করা ওষুধ খেতে হবে। আর সমস্যা বেশি মনে হলে অবশ্যই নিকটবর্তী হাসপাতাল বা স্বাস্থ্যকেন্দ্রে যেতে হবে।

Sarthak Pandit

Published by:Shubhagata Dey

First published:

Tags: Diwali 2023

Scroll to Top